টিপস

ই খতিয়ান যাচাই। অনলাইনে খতিয়ান ও ই-পর্চা যাচাই পদ্ধতি

ই খতিয়ান যাচাই। প্রিয় পাঠক বন্ধু আপনি কি এ খতিয়ান সম্পর্কিত তথ্য জানতে আগ্রহী হয়ে অনলাইনে অনুসন্ধান করে বর্তমান সময়ে আমাদের ওয়েবসাইটটিতে অবস্থান করছেন ? এমন উদ্দেশ্য নিয়ে আমাদের ওয়েবসাইটটিতে এসে থাকলে আপনি সঠিক ওয়েবসাইটে এসেছেন বলে জানানো যাচ্ছে। এর কারণ আজকের পোস্টটিতে আমরা ইখতিয়ার সম্পর্কিত সকল তথ্য নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব। আশা করছি আপনি এ খতিয়ান সম্পর্কিত সকল তথ্য সংগ্রহের মাধ্যমে এই সমস্যাটির সমাধান খুঁজে নিতে পারবেন।

সুতরাং এই বিষয়ে বিস্তারিত সকল তথ্য জানার জন্য পুরো পোস্টের সাথে থাকবেন আশা করছি আপনি উপকৃত হবেন আমাদের এই পোস্টটি পড়ার মাধ্যমে। বর্তমান সময়ে বাংলাদেশের সকল বিভাগের পর্চা সম্পর্কিত বিভিন্ন সমস্যার সমাধান অনলাইন ভিত্তিক করা হয়েছে। বাংলাদেশ সরকার ভূমি মন্ত্রণালয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের মাধ্যমে খতিয়ান ও পর্চা সম্পর্কিত বিভিন্ন সহযোগিতা নিয়ে এসেছে। এই সেবা সমূহ গুলো সম্পর্কে অনেকেই জানতে আগ্রহী এক্ষেত্রে আমরা খতিয়ান সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য জানাতে উপস্থিত হয়েছি আজকের পোষ্ট নিয়ে। প্রতিদিন বিপুলসংখ্যক মানুষ এই বিষয় সর্ম্পকে জানতে আগ্রহী তাই আমরা বিস্তারিতভাবে এই বিষয়টি আলোচনা করেছি।

ই খতিয়ান কি?

ই খতিয়ান যাচাই পদ্ধতি জানার আগে খতিয়ান সম্পর্কিত বিস্তারিত জ্ঞান অর্জনের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে। এক্ষেত্রে আমরা আপনাদের মাঝে প্রথমেই খতিয়ান সম্পর্কে সাধারণ কিছু তথ্য প্রদান করছি। এখান থেকে আপনি জানতে পারবেন খতিয়ান কি। আপনাদের সকলের উদ্দেশ্যে বলা হচ্ছে খতিয়ান হচ্ছে সংখ্যা বা ডিজিট । যে সংখ্যার মাধ্যমে খতিয়ান নির্ধারিত করা হয়ে থাকে। সুতরাং বিষয়টি চেনার জন্য এই পদ্ধতি অবলম্বন করা হয়ে থাকে।

ই-পর্চা এর কাজ কি

জমির মালিকানা যাচাই প্রক্রিয়ার কাজে খতিয়ান নাম্বার এর প্রয়োজন হয়ে থাকে এই বিষয়টি আমরা সকলেই জানি। সুতরাং যে কোন জমির মালিকানা যাচাই করতে গেলে অবশ্যই জমির খতিয়ান নাম্বার এর প্রয়োজন হয়ে থাকে। যেটিকে আমরা সহজভাবে অনেকেই দাগ নাম্বার বলে থাকি। সুতরাং কোনো জমি ক্রয় এবং বিক্রয় এর জন্য এর মালিকানা সম্পর্কে জানার প্রয়োজন হয়ে থাকে এবং মালিকানা জানার পূর্বে জমির খতিয়ান নাম্বার এর প্রয়োজন হয়ে থাকে সুতরাং খতিয়ান নাম্বার সম্পর্কে জানার প্রয়োজনীয়তা অনেক। আশা করছি এর কাজ সম্পর্কে আপনি জানতে পেরেছেন।
অনলাইনে জমির মালিকানা যাচাই

অনলাইনে জমির মালিকানা যাচাই প্রক্রিয়াটি বর্তমান সময়ে খুবই জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। ক্রয়-বিক্রয় সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে মানুষ এই প্রক্রিয়াটি অবলম্বন করে জমির মালিকানা যাচাই করে নিতে পছন্দ করেছেন। তবে এখন পর্যন্ত অনেকেই রয়েছে যারা অনলাইনে জমির মালিকানা যাচাই সম্পর্কে জানেন না এ সকল ব্যক্তিদের সহযোগিতার উদ্দেশ্যে আমরা নিচে জমির মালিকানা যাচাই প্রক্রিয়া সম্পর্কে জানাবো। সুতরাং মালিকানা যাচাই এর জন্য আপনাকে কয়েকটি ধাপ অতিক্রম করতে হবে আপনার কিছু সাধারন তথ্য প্রদান করতে হবে সেই তথ্যগুলো সঠিক ভাবে প্রদানের মাধ্যমে জমির মালিকানা যাচাই করতে পারবেন। এজন্য আপনাকে যে কাজগুলো করতে হবে তা নিচে প্রদান করা হচ্ছে।

ই-পর্চা www eporcha gov bd লগিন

ভূমি মন্ত্রণালয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটটি লগইন করতে হবে এরপর আপনার প্রয়োজনীয় যে সকল তথ্য চাওয়া হবে সেগুলো সঠিকভাবে প্রদানের মাধ্যমে আপনি এই ওয়েবসাইটটি লগইন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে আপনি খতিয়ান এর জন্য আবেদন করতে পারেন লগইন করার পরবর্তী সময়ে আপনাকে যে পেজটি তে নিয়ে যাওয়া হবে সেখানে অনলাইন খতিয়ান অপশন এ ক্লিক করে আপনি যে জমির মালিকানা যাচাই করতে চাচ্ছেন সেটির বিভাগ এবং পর্যায়ক্রমে উপজেলা প্রদান করতে হবে।

এরপর আপনার কাছে মৌজা নাম্বার চাওয়া হবে এর পরবর্তী সময়ে দাগ ও খতিয়ান নাম্বার প্রদান করতে হবে। এক্ষেত্রে আপনার দেওয়া সকল তথ্য সঠিক রয়েছে কিনা এই বিষয়টি যাচাই করে নিতে হবে এরপর আপনার সামনে একটি ক্যাপশন দেয়া হবে যেটি সঠিকভাবে সম্পন্ন করার পর আপনি জমির মালিকানা যাচাই সম্পন্ন করতে পারবেন। আশা করছি পুরো বিষয়টি সম্পর্কে আপনি জানতে পেরেছেন।

Back to top button
Close