রেজাল্ট

এস এস সি গ্রেডিং সিস্টেম ২০২১, এস এস সি এ+ পাওয়ার নিয়ম ২০২১

প্রথমেই শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাই 2021 সালের এসএসসি শিক্ষার্থী বন্ধুদের। আশা করি ভাল আছেন। এই পোস্টে আমরা আপনাদের সামনে তুলে ধরব খুবই প্রয়োজনীয় ও শিক্ষনীয় একটি বিষয়। এসএসসি গ্রেডিং পদ্ধতি। আমরা সকলেই জানি এবারের পরীক্ষাগুলো পূর্বের ন্যায় নেওয়া হচ্ছে না। সংক্ষিপ্ত আকারে পরীক্ষা নেয়া হচ্ছে তাহলে কিভাবে হবে জিপিএ পয়েন্ট অথবা রেজাল্ট। কোথায় কত মার্ক পেলে আপনি জিপিএ 5 পেতে পারেন। করোনা পরিস্থিতির কারণে শিক্ষার্থীদের বিদ্যালয়ে পাঠদান দেওয়া সম্ভব হয়নি। এর ফলে এসাইনমেন্ট এবং শর্ট সিলেবাস দিয়ে সে অনুযায়ী তাদের পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। শর্ট সিলেবাস এর উপর ভিত্তি করে প্রশ্ন তৈরিতে প্রশ্নের ধরন করেছে শর্ট হঠাৎ ছোট। সেই সাথে এ বিষয় এনেছে কমিয়ে। এ কারণেই এবারের রেজাল্ট এর সমীকরণ বদলে গিয়েছে। পূর্বের নিয়মে পয়েন্ট তৈরি করা হচ্ছে না। ব্যতিক্রমভাবে জিপিএ গ্রেডি দেওয়া হবে বলে অনেকেই মনে করছে।

সুতরাং আপনারা যারা এসএসসি পরীক্ষার্থী। তারা অবশ্যই আপনার রেজাল্ট সম্পর্কে আপনার পয়েন্ট তৈরীর পদ্ধতি সম্পর্কে জানবেন। একটি ছাত্র হিসেবে এটি আপনাদের জানা উচিত। এসএসসি জিপিএ গ্রিটিংস পদ্ধতি সম্পর্কে আজকের এই পোস্ট।

এসএসসি গ্রেডিং পদ্ধতি 2021

আপনি কি এসএসসি 2001 সালে শিক্ষার্থীদের রেজাল্ট সম্পর্কিত তথ্য জানার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে এসেছেন ? তাহলে সঠিক জায়গায় এসেছেন। এখান থেকে আপনি এসএসসি গ্রেডিং পদ্ধতি 2021 সম্পর্কে জ্ঞান লাভ করতে পারবেন। এবং জিপিএ 5 পাওয়ার জন্য সংক্ষিপ্ত সিলেবাস অনুযায়ী কোন পরীক্ষা কত মার্ক পাওয়া দরকার ,সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হবে এই পোস্টে।

এসএসসি এ+ পাওয়ার নিয়ম

করোনা পরিস্থিতির কারণে এবারের এসএসসি শিক্ষার্থীদের সিলেবাস ও পরীক্ষার ধরন ভিন্ন । এই ভিন্ন ধারায় পরীক্ষা দিয়ে ভালো ফলাফলের জন্য, এ প্লাস পাওয়ার জন্য কোন বিষয়ে কত মার্ক পাওয়া জরুরি সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন এখানে। একজন ভাল শিক্ষার্থীর এই বিষয়ে জ্ঞান থাকা জরুরি।

নতুন গ্রেডিং পদ্ধতি (পরীক্ষার ফলাফলে সর্বোচ্চ স্কোর জিপিএ-৪)

2020 সালের পর থেকে এই পদ্ধতিটি অনুযায়ী রেজাল্ট দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করো না পরিস্থিতির কারণে সঠিকভাবে বলা যাচ্ছে না কিভাবে এবারের রেজাল্ট প্রকাশ করা হবে। পূর্বের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমরা সর্বোচ্চ জিপিএফ 4 হিসেবে নতুন গ্রেডিং পদ্ধতি জেনে নিতে পারি। ডিজে প্রাপ্ত নাম্বারের সাথে গ্রেডিং পয়েন্ট দেওয়া রয়েছে।

90-100 A+ (4.00)
80-89 A (3.50)
70-79 B+ (3.00)
60-69 B (2.50)
50-59 C+ (2.00)
40-49 C (1.50)
33-39 D (1.00)
00- 32 F (0.00)

প্রচলিত বা পুরনো গ্রেডিং পদ্ধতি

নতুন গ্রেডিং পদ্ধতি প্রকাশের পর। আমরা প্রচলিত বা এতদিন যাবত যে পদ্ধতিটি জেনে এসেছি সেটিকে পুরনো বলছি। আমরা অনেকেই আগের জিপিএ অর্থাৎ গ্রেট পয়েন্ট পদ্ধতিতে জানি আবার অনেকে জানিনা। যারা জানেনা তারা এখান থেকে জেনে নিতে পারবেন পূর্বের পদ্ধতিটি। এবং দুইটি সাথে তুলনামূলক পার্থক্য লক্ষ্য করে আপনার কাছে কোনটি উত্তম বলে মনে হয়েছে ।সেটি নিচের কমেন্ট বক্সে জানিয়ে দেবেন।

এস এস সি গ্রেডিং
এস এস সি গ্রেডিং
Back to top button
Close